15.9 C
Drøbak
শনিবার, জুলাই ২৪, ২০২১
প্রথম পাতাসাম্প্রতিকনাটোর পুলিশের মানবিক উদ্যোগ: ফোন করলে দশ মিনিটে বিনামূল্যে অক্সিজেন পৌঁছাবে

নাটোর পুলিশের মানবিক উদ্যোগ: ফোন করলে দশ মিনিটে বিনামূল্যে অক্সিজেন পৌঁছাবে

নাটোরে করোনা রোগীদের জন্য বিনামূল্যে অক্সিজেন সেবা চালু করেছে নাটোর জেলা পুলিশ। ফোন করলেই ১০ মিনিটের মধ্যে করোনা রোগীদের ঘরে অক্সিজেন পৌঁছে দেবেন নাটোর পুলিশ।

নাটোর পৌরসভার মধ্যে ০১৩২০-১২৪৫০৩ নম্বরে ফোন করলেই মাত্র ১০ মিনিটের মধ্যে করোনা আক্রান্তসহ শ্বাসকষ্টের রোগীদের বাড়িতে পৌঁছে যাবে অক্সিজেন সেবা। এছাড়া জেলার যে কোনো স্থানে অক্সিজেন চাইলে ২টি অ্যাম্বুলেন্স ও পিকআপের মাধ্যমে পৌঁছে দেওয়া হবে।

পৌরসভার পাশাপাশি জেলাজুড়ে মাত্র ১০ মিনিটে বিনামূল্যে করোনাসহ শ্বাসকষ্টে আক্রান্ত রোগীদের জন্য অক্সিজেন সেবা চালু করেছে নাটোর জেলা পুলিশ।আজ মঙ্গলবার (২২ জুন) দুপুরে জেলা পুলিশের এই সেবা চালু করেন রাজশাহী রেঞ্জের ডিআইজি আব্দুল বাতেন।

জানা গেছে, করোনা আক্রান্ত হয়ে যারা হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে পারছেন না, বাসায় বসে চিকিৎসা নিচ্ছেন তাদের জন্যই এই সেবা চালু করেছে নাটোর জেলা পুলিশ। করোনা আক্রান্ত শ্বাসকষ্টের রোগীর তথ্য ফোনে জানালেই দ্রুত সময়ের মধ্যে অক্সিজেন সিলিন্ডার নিয়ে পৌঁছে যাবেন পুলিশ সদস্যরা।

ডিআইজি আব্দুল বাতেন জানান, গত ২ সপ্তাহ ধরে নাটোরে সংক্রমণ বৃদ্ধি পেয়েছে। হাসপাতালগুলোর শয্যার চেয়ে রোগীর সংখ্যা বেশী। এতে করে নাটোরবাসীর যেন অক্সিজেনের অভাবে মৃত্যুবরণ না করে সেজন্য অক্সিজেন ব্যাংক স্থাপন করা হলো।

নাটোরের পুলিশ সুপার লিটন কুমার সাহা বলেন, নাটোর পৌরসভার মধ্যে ০১৩২০-১২৪৫০৩ নম্বরে ফোন করলেই মাত্র ১০ মিনিটের মধ্যে করোনা আক্রান্তসহ শ্বাসকষ্টের রোগীদের বাড়িতে পৌঁছে যাবে অক্সিজেন সেবা।

এছাড়া জেলার যে কোনো স্থানে অক্সিজেন চাইলে ২টি অ্যাম্বুলেন্স ও পিকআপের মাধ্যমে পৌঁছে দেওয়া হবে।পুলিশের একটি বিশেষজ্ঞ টিম ২৪ ঘণ্টা এ সেবা প্রদান করবে। প্রথম পর্যায়ে ২৫০ কিউবি মিটার অক্সিজেন নিয়ে যাত্রা শুরু হয়েছে।ডাক্তার যাদের অক্সিজেন দিতে বলেছেন, তাদেরকেই কল করতে অনুরোধ জানান তিনি।

বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশনের নাটোর জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মুক্তার হোসেন বলেন, মঙ্গলবার পর্যন্ত জেলায় ১ হাজার ৩২৩ জন করোনা আক্রান্ত রোগী হাসপাতাল ও বাড়িতে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

আর জেলার সরকারি ৬টি হাসপাতালে করোনা আক্রান্ত রোগীর জন্য শয্যা রয়েছে মাত্র ৯০টি। এই পরিস্থিতিতে করোনা আক্রান্তসহ শ্বাসকষ্ট রোগে বিনামূল্যে অক্সিজেন প্রদানে পুলিশ এই উদ্যোগটি প্রশংসা পাওয়ার মতো। নিজের কাজের বাইরে গিয়ে নাটোরের পুলিশ মানবতার পরিচয় দিয়েছেন বলে তিনি মনে করেন।

পুলিশের প্রশিক্ষিত টিম শুধু অক্সিজেন সিলিন্ডার পৌঁছে দিয়েই দায়িত্ব শেষ করবেন না । সেই সঙ্গে অক্সিজেন কীভাবে লাগাতে হবে এবং ব্যবহার করতে হবে তা বুঝিয়ে দেবেন।
এরফলে নাটোরে করোনা আক্রান্ত শ্বাসকষ্টের রোগীরা কল করে প্রাথমিকভাবে অক্সিজেন সাপোর্ট পাবেন।

অন্যান্য নিবন্ধসমূহ

সংবাদদাতা এবং লেখা আবশ্যক

নরওয়ে থেকে প্রকাশিত একমাত্র বাংলা পত্রিকা ‘সাময়িকী’ পত্রিকার জন্য বাংলাদেশ সহ বিশ্বের অন্যান্য দেশ থেকে সংবাদদাতা আবশ্যক।
ভায়োলেট হালদার
প্রধান সম্পাদক
[email protected]

গল্প-কবিতা সহ বিবিধ সাহিত্য রচনা প্রসঙ্গে ইমেইল করুন।
লিটন রাকিব
সাহিত্য সম্পাদক
[email protected]

- বিজ্ঞাপন -

সর্বাধিক পঠিত

সদ্য প্রকাশিত

লেখা কপি করার অনুমতি নেই, লিংক শেয়ার করুন।