৩ নভেম্বর ২০১৫, মঙ্গলবার 
স্মরণ 

আঁদ্রে মালরো
সাময়িকী.কম : ফরাসি মিনষী আঁদ্রে মালরো প্যারিসের এক সচ্ছল পরিবারে ১৯০১ সালের ৩ নভেম্বর জন্ম গ্রহণ করেন। তার লেখা বিংশ শতাব্দীর সংস্কৃতিতে বিরাট অবদান রেখেছে।
মালরো প্যারিসের একোল দে ল্যা ওরিয়াঁতালে শিক্ষা লাভ করেন। ১৯২৩ সালে ২১ বছর বয়সে প্রত্নতাত্ত্বিক গবেষণার কাজে তিনি সস্ত্রীক ইন্দোচীন উপদ্বীপের কম্বোডিয়াতে যান। সেখানে ফ্রান্সের বিরুদ্ধে আন্নামীয়দের স্বাধীনতা সংগ্রামে তিনি সক্রিয় হয়ে পড়েন। চীনের গৃহযুদ্ধে তিনি কুওমিং-টাংয়ের পক্ষে সক্রিয় অংশগ্রহণ করেন। মালরো তার এশীয় অভিজ্ঞতাকে পটভূমি করে তিনটি উপন্যাস লেখেন।১৯৩৬-৩৯ সালে রাজার অনুগত হয়ে স্পেনের গৃহযুদ্ধে যোগ দেন। এই গৃহযুদ্ধের অভিজ্ঞতাকে আশ্রয় করে লেখেন উপন্যাস লেস্পোয়া। দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধকালে তিনি স্বেচ্ছাসেবী হিসেবে অংশ নেন। তাকে জার্মানরা বন্দী করে। কিন্তু তিনি পালিয়ে যান। প্রথম জীবনে সাম্যবাদের সঙ্গে থাকলেও ১৯৪৫-৪৬ সালে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট শার্ল দ্য গ্যলের সরকারের তথ্য সচিব হন। বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধেও তিনি অবদান রাখেন। পরে সংস্কৃতিমন্ত্রীও হন।
ঔপন্যাসিক, প্রত্নতত্ত্ববিদ, শিল্পকলা তাত্ত্বিক, রাজনৈতিক কর্মী আঁদ্রে মালরো ১৯৭৬ সালের ২৩ নভেম্বর ফ্রান্সের ক্রিটিলে পরলোকগমন করেন।
বিভাগ:

Author Name

যোগাযোগের ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.