সাময়িকী.কম
কম বেশি সবারই আইনী সহায়তার প্রয়োজন হয় জীবনের কখনো না কখনো। কিন্তু অনেকেই আইনী সহায়তা নিতে চান না বা নিতে পারেন না আর্থিক কারণে। তাহলে জেনে রাখুনন, সরকার বিনামূল্যে আইনি সহয়তার ব্যবস্থা করেছেন। এই ব্যবস্থা অনু্যায়ী কিছু বিশেষ মানুষ বিশেষ ক্ষেত্রে পাবেন এই সহায়তা, নিজের ওপরে কোন আর্থিক চাপ না নিয়েই আইনী সেবা পেতে পারবেন। এছাড়াও নারীদের জন্যও আছে বিশেষ ব্যবস্থা। এ সেবা পাওয়ার জন্য আছে কিছু নিয়ম। এই নিয়ম সম্পর্কে প্রিয়.কম এর সাথে কথা বলেছেন সুপ্রীম কোটের আইনজীবী ফারিয়া বিন্তে আলম।
কারা ক্ষেত্রে পাবেন এই সহায়তা

যেকোনো অসচ্ছল ব্যক্তি
পাচারের শিকার নারী বা শিশু
এসিডদগ্ধ নারী বা শিশু
অসচ্ছল বিধবা এবং স্বামী পরিত্যাক্তা দরিদ্র নারী
শারীরিক বা মানসিক সমস্যার কারণে উপার্জনে অক্ষম ব্যক্তি এবং সহায় সম্বলহীন প্রতিবন্ধী
আর্থিক অসচ্ছলতার কারণে আদালতে অধিকার প্রতিষ্ঠা করতে অসমর্থ ব্যক্তি
বিনা বিচারে আটক ব্যক্তি, যিনি আত্মপক্ষ সমর্থন করতে অক্ষম
আদালত কর্তৃক ঘোষিত অসচ্ছল ব্যক্তি
যেসব মামলায় আইনী সহয়তা পাবেন

স্ত্রীর বিনা অনুমতিতে স্বামী বিয়ে করলে
স্বামী শারীরিক নির্যাতন করলে
যৌতুক দাবি বা যৌতুকের জন্য নির্যাতন
অ্যাসিড নিক্ষেপ,পাচার, অপহরণ, ধর্ষণ
আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী কর্তৃক আটক বা গ্রেপ্তারসংক্রান্ত যেকোনো মামলা
সন্তানের অভিভাবকত্ব, ভরণপোষণ
দেনমোহর আদায় ও বিবাহবিচ্ছেদ
সম্পত্তির দখল পুনরুদ্ধার
সম্পত্তি বণ্টন ইত্যাদি।
কীভাবে আবেদন করবেন

প্রতিটি জেলা আদালতে আইনগত সহায়তা কমিটি আছে। সেখান থেকে আবেদনপত্র সংগ্রহ করে সরাসরি আবেদন করা যাবে। এ ছাড়া প্রতিটি জেলা আদালতের বেঞ্চ সহকারী অথবা জাতীয় মহিলা সংস্থার জেলা ও উপজেলা কার্যালয়েও আবেদন ফরম পাওয়া যায়। এই আবেদন পত্রে নাম, পূর্ণ ঠিকানা এবং সহায়তা চাওয়ার কারণ উল্লেখ করে আবেদন করতে হবে। এই আবেদন যাচাইয়ের পর আবেদনকারীর পক্ষে আইনজীবী নিয়োগের মাধ্যমে আইনী সহায়তা দেওয়া হবে।
পরামর্শদাতা
ফারিয়া বিন্তে আলম
আইনজীবী
সুপ্রীম কোর্ট
ফটো সোর্স: www.rumahwirausaha.com
বিভাগ: ,

Author Name

যোগাযোগের ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.