সাময়িকী.কম

মাগুরায় যুবলীগের দুই গ্রুপের বন্দুকযুদ্ধে মায়ের গর্ভে শিশু গুলিবিদ্ধ হওয়ার ঘটনায় প্রধান আসামি জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি সুমন সেনকে (৩০) গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।
গণমাধ্যমে পাঠানো র‌্যাবের এক ক্ষুদে বার্তায় জানানো হয়, রবিবার (২ আগস্ট) দুপুরে রাজধানীর কল্যাণপুরের একটি বাসা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।
এই মামলা নজরুল ইসলাম (৩৫) নামের আরেক আসামিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। রবিবার সন্ধ্যায় মাগুরার শ্রীপুর উপজেলার ওয়াপদা এলাকা থেকে ঢাকাগামী একটি বাসে তল্লাশি চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়। এর আগে সুমন হোসেন ও সোবহান নামে আরো দু’জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

২৩ জুলাই জেলার দোয়ারপাড় এলাকায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে যুবলীগের দুই গ্রুপের মধ্যে বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। ওই সময় সাড়ে সাত মাসের অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূ নাজমা বেগম, তার চাচাশ্বশুর মমিন ভূঁইয়া এবং মিরাজ নামে অন্য এক যুবক আহত হয়। একদিন পর হাসপাতালে মমিন মারা যান।

গুলিবিদ্ধ নাজমা বেগমকে ওই রাতেই অস্ত্রোপচারের পর একটি কন্যা শিশুর জন্ম হয়। এরপর গুলিবিদ্ধ ওই শিশুটিকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়।
বিভাগ:

Author Name

যোগাযোগের ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.