নিউজ ডেস্ক 
সাময়িকী.কম
 ফিলিপাইনের রাষ্ট্রদূত ডোমিনগো ডি লুসেনারিও জুনিয়র ও নরওয়ের রাষ্ট্রদূত লেইফ এইচ লারসেন। ছবি : সংগৃহীত

পাকিস্তানে হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত হয়ে নরওয়ে ও ফিলিপাইনের রাষ্ট্রদূত নিহত হয়েছেন। এঘটনায় দুই পাইলটসহ আরো চারজন নিহতের খবর নিশ্চিত করেছে পাকিস্তানের শীর্ষস্থানীয় গণমাধ্যম ডন। এ ঘটনায় ডাচ রাষ্টদূতসহ বেশ কয়েকজন আহত হয়েছে। নিহতদের মধ্যে মালয়েশিয়া ও ইন্দোনেশিয়ার রাষ্ট্রদূতের স্ত্রীও রয়েছেন।

বিবিসির সংবাদে বলা হয়েছে, নালতার উপত্যকা অঞ্চলে জরুরি অবতরণের সময় সামরিক হেলিকপ্টারটি বিধ্বস্ত হয়। এতে নরওয়ের রাষ্ট্রদূত লেইফ এইচ লারসেন, ফিলিপাইনের রাষ্ট্রদূত ডোমিনগো ডি লুসেনারিও জুনিয়র, মালয়েশিয়া ও ইন্দোনেশিয়ার রাষ্ট্রদূতের স্ত্রী এবং দুই পাইলট নিহত হন।

জানা গেছে, বিধ্বস্ত হেলিকপ্টারটি পাকিস্তানের বিতর্কিত কাশ্মীর অঞ্চল গিলগিট-বালতিস্তানের দিকে যাচ্ছিল। সেখানে তাদের একটি পর্যটন স্থাপনা উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়ার কথা ছিল। পর্যটকদের জন্য স্থাপনাটি বিমানবাহিনী নির্মাণ করেছে। পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফের এই স্থাপনা উদ্বোধনের কথা ছিল। কিন্তু হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত হওয়ার পর প্রধানমন্ত্রীকে বহনকারী বিমান গিলগিট থেকে ফিরে গেছে। হেলিকপ্টারটি বিধ্বস্ত হওয়ার কারণ এখনো জানা যায়নি।

হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত করার এঘটনায় হামলার কথা স্বীকার করেছে তালেবান। শুক্রবার বিকালে পাকিস্তানের চরমপন্থী সশস্ত্র গোষী তালেবান বলেছে, হামলার প্রধান টার্গেট ছিলেন নওয়াজ শরীফ। খবর এনডিটিভির।

হামলার পর তালেবানের মূথপাত্র মোহাম্মদ খোরাসানি ই-মেইল বার্তায় জানান, বিমান বিধ্বংসী মিসাইল ব্যবহার করে হেলিকপ্টারটি ভুপাতিত করা হয়েছে। পাকিস্তান শাসিত কাশ্মীরের ঐ অঞ্চলে যাচ্ছিলেন পাকিস্তান প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফ। তবে তিনি হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত হওয়ার খবর পেয়ে রাজধানী ইসলাবাদে ফিরে যান। 

Author Name

যোগাযোগের ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.