নূর হোসেন

তোমায় যেদিন প্রথম দেখেছি,
তখন এক অদ্ভুত অনুরাগে
মনে হয়েছে ,
তুমি আমার কত চেনা

হয়ত কোন কালে এক সাথে
ঘর বেধেছি,দেখেছি কত স্বপ্ন,
আর রয়েছিলাম আজীবন
তোমায় যেদিন প্রথম দেখেছিলাম
মনে হয়তুমি কত চিরচেনা
আত্নাটা আঁতকে উঠে এক অভিন্ন আনন্দে
সব খালি করে বের করে সামান্য শূন্যতা,
মিলতে চায় মেয়েটির সাথে আগের মত

মেয়েটির চোখের দিকে তাকালে অনুভুতি
সব জড়ো হয় আবেগে,কত চিরচেনা
সেই মেয়েটি,যাকে প্রথম দেখেছিলাম
এক ভাঙা প্রাচীরের উপর বসে থেকে,
সে যাচ্ছিল ধীর পায়ে রাস্তা দিয়ে

সে খুঁজছিল আমারই বাড়ি দিক-ওদিক
তবুও তার সন্ধান পায়নি 
আজো স্মৃতি নাড়া দেয়
ভেসে ওঠে সজল চোখে
কত দিনের পরিচিত সে

জোছনার আলোক প্রাচীর টপকে
আমার রন্ধ্রে প্রবেশ করে,
আর মোহনীয় আবেশে মনে হয়
দাঁড়িয়ে আছি এক স্বপ্নপুরীতে;
তখনও তার ছায়া দেখি
হেঁটে যাচ্ছে জোছনাস্নাত রাস্তায়
আমি দেখছি আজো প্রাচীরে বসে

Author Name

যোগাযোগের ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.