আফগানিস্তানের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় বাদাকশান প্রদেশের আব খোশক গ্রামে ভয়াবহ ভূমিধসে কয়েকটি গ্রাম মাটির নীচে চাপা পড়েছে। এ ঘটনায় অন্তত ২১০০ জন নিহত হয়েছে বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।
বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, ভূমিধসের ঘটনায় তিন'শ পরিবারের ২১০০ লোক নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় প্রায় চার হাজার লোক এখনো নিখোঁজ রয়েছে। এ সংখ্যায় বড় ধরনের রদবদল হতে পারে বলে জানানো হয়েছে।
এর আগে আফগানিস্তানের জাতিসংঘ মিশন এক বিবৃতিতে বলেছে, ভূমিধসের ঘটনায় নিহতের সংখ্যা ৩৫০ জনে পৌঁছেছে। এ ঘটনায় প্রায় দুই দেড় সহস্রাধিক লোক এখনো নিখোঁজ রয়েছে। এ সংখ্যায় বড় ধরনের রদবদল হতে পারে বলেও বিবৃতিতে জানানো হয়েছে।
বাদাখশানের প্রাদেশিক ডেপুটি গভর্নর গুল মোহাম্মাদ বাইদার এর আগে জানিয়েছিলেন, ২৫০ থেকে ৪০০ ব্যক্তি নিখোঁজ রয়েছেন এবং ৩৫০ থেকে ৪০০টি বাড়ি ধ্বংস হয়েছে। প্রবল বৃষ্টির কারণে এ ভূমিধসের ঘটনা ঘটেছে।
তিনি বলেছেন, এ ঘটনায় ঠিক কতজন নিহত হয়েছে তা জানা যায়নি তবে, মৃতের সংখ্যা অনেক বেশি হবে বলে আশংকা করা হচ্ছে। জরুরভিত্তিতে সরকারি কর্মকর্তারা ও উদ্ধারকারী দল ঘটনাস্থলে ছুটে গেছে।
বাদাখশান হচ্ছে তাজিকিস্তান, চীন ও পাকিস্তান সীমান্তে অবস্থিত একটি দূরবর্তী প্রদেশ।
এদিকে, আফগান জাতীয় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষের প্রধান মুহাম্মাদ দায়িম কাকার রাজধানী কাবুলে বলেছেন, আমরা এ পর্যন্ত জানতে পেরেছি যে, আরগো অঞ্চলের আব বারিক গ্রামে প্রায় ৬০০ পরিবারের বসবাস ছিল এবং ওই এলাকায় গত কয়েকদিন ধরে বৃষ্টি হচ্ছিল। এরই ফলে ভূমিধসের ঘটনা ঘটেছে।

Author Name

যোগাযোগের ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.