জুন মাসের শেষ সপ্তাহে পদ্মা সেতুর কার্যাদেশ দেয়ার কথা থাকলেও এখন জুন মাসের প্রথম সপ্তাহেই তা দেয়া সম্ভব হবে বলে জানিয়েছেন যোগাযোগমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।
শুক্রবার সকালে মুন্সীগঞ্জের লৌহজং উপজেলার মাওয়া পদ্মা সেতু রেস্ট হাউজে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা জানান।
তিনি বলেন, নির্ধারিত সময়ের আগেই পদ্মা সেতুর কার্যাদেশ দেয়া হবে। জুন মাসের শেষ সপ্তাহে কার্যাদেশ দেয়ার কথা থাকলেও এখন জুন মাসের প্রথম সপ্তাহেই তা দেয়া সম্ভব হবে। চায়না মেজর ব্রিজ এই কার্যাদেশ পেতে যাচ্ছে। তবে এখনও যাচাই বাছাইয়ের বিষয় রয়েছে।
ওবায়দুল কাদের বলেন, ইতিমধ্যে মাওয়া এপ্রোজ রোডে কাজ অনেকাংশে এগিয়ে গেছে। মূল ব্রিজের জুনের মধ্যে কার্যাদেশ দেয়ার কারণে মাওয়া ঘাটকে জুরুরি ভিত্তিতে স্থানান্তর করতে গিয়ে আপাতত শিমুলিয়া বাজারের কাছে ঘাট স্থানান্তরের কাজ শুরু হয়েছে। সেনা বাহিনী আড়াই কি.মি রাস্তার কাজ ইতিমধ্যে শুরু করে দিয়েছে। তবে মাওয়া ঘাটকে স্থায়ীভাবে কান্তিপাড়ায় স্থানান্তর করা হবে। তার জন্য এক বছরের সময় প্রয়োজন।
তিনি আরও বলেন, মাওয়া তীর রক্ষা বাধের কাজ প্রায় শেষ। ১৩৯ কোটি টাকা ব্যয়ের এ প্রকল্পে সেনাবাহিনী ইতোমধ্যে ১৪ লাখ জিও ব্যাগের মধ্যে ১০ লাখ নদীতে ফেলেছে। আগামী ৩/৪ দিনের মধ্যে বাকী জিও ব্যাগ ফেলা শেষ হবে। সেক্ষেত্রে আগমী এক সপ্তাহের মধ্যে এ কাজ শেষ হবে বলে আশা করা যাচ্ছে।

Author Name

যোগাযোগের ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.