‘বিয়ে মানেই নারী ক্যারিয়ারের সমাপ্তি’- এই কথাটি যেন বলিউডের বেলায় চরম সত্যি। তবে এর ব্যতিক্রম রয়েছে। মাধুরী, স্রীদেভীর মতো অভিনেত্রিরা দাপটের সাথে আজও পাল্লা দিয়ে যাচ্ছেন নতুন প্রজন্মের নায়িকাদের সাথে। কিন্তু বিয়ের পর ক্যারিয়ার নিয়ে হুমকির মুখে পড়তে হচ্ছে অনেক অভিনেত্রীকেই। চলুন তবে এক ঝলক দেখে নেই বলিউডের কোন কোন বিবাহিত অভিনেত্রীরা ক্যারিয়ার নিয়ে শঙ্কায় ভুছেন। এবং কাদের এখানেই পরিসমাপ্তি।
বিদ্যা বালন
বলিউডের একসময়ের সুপারস্টার। হ্যাঁ, খুব তাড়াতাড়ি যেন অতীতে পরিনত হয়ে গেছে এই তারকার জন্য। পরপর হিট সিনেমা উপহার চ্যালেঞ্জিং রোল। সব কিছু মিলিয়ে এক সময় এক নম্বরের তকমাটা তো গায়ে লাগিয়েছিলেন সাথে ছিল বলিউডের খানদের একাই প্রতিযোগিতা দেয়ার শক্তি। বিয়ের পর পরিস্থিতিটা হঠাৎ করেই পাল্টে গেল। সুজয় ঘোষের সিনেমাটি হাত ছাড়া হয়ে গেল। এখন মাত্র একটি সিনেমা 'ববি জাসুস’র কাজেই ব্যস্ত এই নায়িকা। 'ববি জাসুস’র পর বিদ্যা বালনের হাতে ইমরান হাসমির বিপরীতে একটি সিনেমাতে কাজ করার কথা থাকলেও সিনেমাটিতে বিদ্যার কাজ নিইয় কেউই মুখ খুলচ্ছেন না
কারিনা কাপুর
'কুইন' সিনেমা করার কথা ছিল কারিনা কাপুরের। তিনি 'না' বলায়, নায়িকার ভূমিকায় দেখা যায় কঙ্গনাকে এ খবর নতুন কিছু নয়। শুধু 'কুইন' নয়, কারিনার 'অপছন্দ'-এর কারণে বেশ কিছু সিনেমাো হাতছাড়া হয় তার। যেমন রণবীর সিংয়ের সঙ্গে জুড়িটা ভালো হবে না বলে তিনি 'রামলীলা' করেননি। কারিনার পরের প্রোজেক্ট হিসাবে দুটো সিনেমার কথা খুব শোনা যাচ্ছিল, করণ জোহরের 'শুদ্ধি' আর 'বোম্বে সামুরাই'। ইতোমধ্যেই 'শুদ্ধি' সিনেমা থেকে বাদ পড়েছেন এই অভিনেত্রী । এদিকে আর শাহরুখ খানের একটি ছবি নিয়ে এক্সেল এন্টারটেইনমেন্ট এতই ব্যস্ত যে, 'বোম্বে সামুরাই'-এর কাজ এগোচ্ছে না। সব মিলিয়ে কারিনার হাতের এখন রয়েছে 'সিংহম টু’। যদিও সিনেমার বেশির ভাগ অংশ জুড়েই অজয় দেবগান।
কাজল
বলিউডের অন্যতম সম্ভবনাময় নায়িকাই ছিলেন এই অভিনেত্রী। শাহরুখ খানের বিপরীতে বছরের পর বছর হিট সিনেমা উপহার দিয়ে গেয়েছেন। কিন্তু অজয়ের সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হঅয়ার পর থেকে ক্রমশ বলিউড থেকে সরিয়ে নিয়েছেন নিজেকে। মাঝে মধ্যে একটি দুটি সিনেমায় কাজ করলেও এখন তার কোন হদিসই নেই।
রানী মুখোপাধ্যায়
বিয়ে করার পর অবশ্য চলচ্চিত্র জগতে নিজের ক্যারিয়ার নিয়ে খুব একটা ভাবছেন না এই অভিনেত্রী। ‘নো ওয়ান কিল্ড জেসিকা’ সে ভাবে সাফল্য না পাওয়ার পর রানীর হাতে নতুন কোন সিনেমা নেই। সম্প্রতি 'আইয়া' এবং 'তালাস' এই দুই সিনেমার কোনোটিই তাকে তেমন খ্যাতি দিতে পারেননি। আপাতত তার জীবনে একটি মানুষই গুরুত্বপূর্ণ। আদিত্য চোপড়া। একই সঙ্গে প্রযোজক এবং স্বামী। নতুন ছবি 'মরদানি' ভালো চললে আদিত্য এবং রানী দু'জনের পক্ষেই মঙ্গলজনক। আর না চললে আদিত্যর হাতেই রানীর জীবন, শুধু ফিল্ম ক্যারিয়ার নয়, বাস্তবের জীবনটাও।
ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চন
২০০৭ সালে অভিষেকের সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়ে যেন একরকম হারিয়েই গেলেন এই বিশ্ব সুন্দরী।
শিল্পা শেঠী
বিয়ের চলচ্চিত্র থেকে নিজেকে সরিয়ে নিয়েছেন এই অভিনেত্রীও।

Author Name

যোগাযোগের ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.