প্রতিদিনই তো আমরা বেশ কয়েক গ্লাস পানি খাই। বিশেষ করে গরমের সময় পানি না খেলে যেন প্রানটাই বাঁচানো দায় হয়ে পড়ে। কিন্তু অধিকাংশ মানুষই পানি খায় শুধুমাত্র তখনই যখন তার পানির তৃষ্ণা পায়। কিন্তু তৃষ্ণা পাওয়া ছাড়াও প্রতিটি মানুষেরই পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি খাওয়া উচিত যা অধিকাংশ মানুষই খায় না। আবার অনেক সময় আবহাওয়া, পেশা ও শারীরিক অবস্থার উপরও নির্ভর করে কার কতটুকু পানি খাওয়া উচিত।
পানির আছে বিস্ময়কর কিছু উপকারিতা। শুধুমাত্র পানিই সারিয়ে তুলতে পারে শারীরিক নানান সমস্যা। আসুন জেনে নেয়া যাক পানির বিস্ময়কর ৭টি উপকারিতা সম্পর্কে।

মেদ কমায়

ওজন কমাতে চাইছেন? তাহলে বেশি করে পানি খান। পানি শরীরের মেটাবলিজম বৃদ্ধি করে। বিশেষ করে বরফ ঠান্ডা পানি খেলে শরীর সেটাকে গরম করার জন্য অতিরিক্ত বেশ ক্যালরি পুড়িয়ে ফেলে এবং এই প্রক্রিয়ায় কিছুটা মেদ কমে। পানি পেট ভরা থাকার অনুভূতি দেয়। তাই খাওয়ার আগে এক গ্লাস পানি খেয়ে নিলে পেট ভরা থাকে এবং অতিরিক্ত খাওয়া হয় না। ফলে শরীরে অতিরিক্ত ক্যালরি যুক্ত হয় না।

দূর্বলতা কমায়

পানি খেলে শারীরিক দূর্বলতা কমে যায় তাৎক্ষণিক ভাবেই। শরীরে পানির অভাব হলে শরীর বেশ দূর্বল অনুভূত হয়। বিশেষ করে ঘামের মাধ্যমে শরীর থেকে সব পানি বের হয়ে শরীরকে দূর্বল করে ফেলে। পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি খেলে হৃদপিন্ডের রক্ত সঞ্চালন প্রক্রিয়া সচল হয় এবং শরীরের ক্লান্তি অনেকটাই দূর হয়ে যায়।

মানসিক চাপ কমায়

মস্তিষ্কের ৭০% থেকে ৮০% টিস্যুই পানি দ্বারা পরিপূর্ন। আর তাই যখন শরীরে পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি না থাকে তখন মানুষ বিষন্নতায় ভোগে। তাই মনকে সতেজ ও ফুরফুরে রাখতে চাইলে প্রচুর পরিমাণে পানি পান করুন।

মাংসপেশী ভালো রাখে

পানি মাংসপেশীকে সুগঠিত করে। এছাড়াই মাংসপেশি শক্ত হয়ে যাওয়া, টান খাওয়া এসব সমস্যা থেকে রক্ষা পেতে হলে শরীরে পর্যাপ্ত পানির উপস্থিতি থাকা জরুরি। বিশেষ করে যারা নিয়মিত ব্যায়াম করেন তাদের প্রতিদিন প্রচুর পরিমাণে পানি খাওয়া উচিত।

ত্বক উজ্জ্বল ও সতেজ রাখে

এই গরমে অনেকেরই ত্বকের নানান রকম সমস্যা দেখা দেয়। গরমে ত্বকের সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে এবং ত্বকের সতেজতা ও উজ্জ্বলতা বজায় রাখতে চাইলে প্রচুর পরিমাণে পানি পান করুন। এতে ত্বকের কোষ গুলোতে পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি পৌছায় এবং ত্বক উজ্জ্বল ও সজীব দেখায়।

Author Name

যোগাযোগের ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.