ইউক্রেন সংকটকে কেন্দ্র করে রাশিয়ার উপরে আরেক দফা নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে যুক্তরাষ্ট্র। রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সাথে সম্পর্কিত এমন সাতজন ব্যক্তি এবং সতেরটি প্রতিষ্ঠানের ওপর নতুন এই অবরোধ আরোপ করা হয়েছে বলে জানা গেছে।
বিবিসি তাদের খবরে জানায়, নিষেধাজ্ঞাপ্রাপ্তদের মধ্যে রয়েছেন রাশিয়ার বৃহৎ তেল কোম্পানি রোজনেফ্টের প্রধান ইগর সেচিন।
এদিকে ইউক্রেন সংকট নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রকে বাড়াবাড়ি বন্ধ করার আহ্বান জানিয়ে রুশ প্রতিরক্ষামন্ত্রী সের্গেই সোইগু মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী চাক হেগেলকে বলেছেন, ‘ইউক্রেন সীমান্তে মহড়ার পর রুশ সেনারা ব্যারাকে ফিরে গেছে। রাশিয়া ইউক্রেনে আক্রমণ চালাবে না।’
এদিকে ইউক্রেনের অখণ্ডতার পক্ষে পূর্বাঞ্চলীয় দোনেৎস্ক শহরের একটি সমাবেশ ভণ্ডুল করে দিয়েছে রুশপন্থী সশস্ত্র বিদ্রোহীরা। লাঠি, লোহার দণ্ড এবং চেইন নিয়ে তারা ঐ সমাবেশে হামলা চালায়। এ হামলায় অনেক মানুষ আহত হয়, হামলার সময় সামরিক পোষাকে কয়েক’শ মানুষ রাশিয়ার নামে স্লোগান দিচ্ছিল।
এর আগে পূর্বাঞ্চলীয় অপর একটি শহর, খারকিভের মেয়র গুলিবিদ্ধ হয়ে বর্তমানে সংকাটপন্ন অবস্থায় রয়েছেন। তবে তার অপর কারা হামলা চালিয়েছে, এবিষয়ে কর্তৃপক্ষ এখনো কোন মন্তব্য করেনি।
ইউক্রেনের সাথে সম্পর্কিত সম্ভাব্য দুর্নীতির অভিযোগের বিষয়ে তদন্ত শুরু করেছে ব্রিটেন। তারা প্রায় দুই কোটি ত্রিশ লক্ষ ডলারের সম্পদ জব্দ করেছে।
সূত্র: বিবিসি

Author Name

যোগাযোগের ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.